হরতালে পাবিপ্রবির বাস ভাঙচুর

পাবিপ্রবি
  © টিবিএম ফটো

দেশব্যাপী ডাকা বিএনপি-জামায়াতের ৪৮ ঘণ্টার হরতালে পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের(পাবিপ্রবি) শিক্ষার্থীদের জন্য ব্যবহৃত বিআরটিসি দোতলা একটি বাস ভাঙচুর করা হয়েছে। এতে পরিসংখ্যান বিভাগের শাহিদুল ইসলাম জিহাদ নামের প্রথম বর্ষের এক শিক্ষার্থী আহত হয়েছেন। আজ রবিবার (১৯ নভেম্বর) সকাল ১১টায় পাবনা শহরের মহিষের ডিপো এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।


ঘটনার বর্ননা দিতে গিয়ে বিআরটিসি বাসের চালক মো.শাহীনুর রহমান জানান, আমরা মহিষের ডিপো ক্রস করছিলাম। আচমকা গলির ভেতর থেকে ৮/১০ জন মুখে মাস্ক পড়া বাসের দিকে উদ্দেশ্য করে ইটপাটকেল ছুঁড়ে। তখন বাসে থাকা শিক্ষার্থীরা আতঙ্কিত হয়ে পড়ে। আমি গাড়ির স্পিড বাড়িয়ে দ্রুত ঘটনাস্থল ত্যাগ করি। পরে অনন্ত মোড়ে এসে আমাদের অফিসে ফোন দিয়ে ঘটনা জানায়। তখন পুলিশ আসে। 


এ ঘটনায় বাসের চারটি জানালা ভেঙে যায়। আহত শিক্ষার্থীর সহপাঠীরা জানান, ‘শাহিদুল ইসলাম মহিষের ডিপো এলাকায় নামার জন্য দরজায় দাঁড়িয়ে ছিলেন। এ সময় বাস হঠাৎ করে ব্রেক করলে সে বাস থেকে পড়ে যায়। এ সময় তার হাঁটু ছিলে যায় এবং পায়ে ব্যথা পায়। পরে প্রাথমিক চিকিৎসার জন্য তাকে পাবনা সদর হাসপাতালে নেওয়া হয়।’

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড. কামাল হোসেন জানান, ‘সকালে হরতাল পালনকারীরা বাসে ঢিল মেরে বাসের জানালা ভেঙে দেয়। এ ঘটনা শোনার পরপরই আমরা আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে বিষয়টি অবহিত করি। শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তার ব্যাপারে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী আমাদের আশ্বস্ত করেছে এবং তারা ঘটনায় যারা জড়িত তাদের আটকের চেষ্টা করছেন বলে জানিয়েছেন।’

এ ঘটনায় পাবনা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রওশন আলী জানান, ‘ঘটনা শোনার পর আমরা ঘটনাস্থলে যাই। জড়িতদের আটকের জন্য আমাদের টিম কাজ করছে।'


মন্তব্য