বশেমুরবিপ্রবিতে

সর্বজনীন পেনশন স্কিম বাতিলের দাবিতে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভা 

গোপালগঞ্জ
  © টিবিএম

দেশের স্বায়ত্ত্বশাসিত বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের জন্য সর্বজনীন পেনশন সংক্রান্ত বৈষম্যমূলক প্রজ্ঞাপন প্রত্যাহারের দাবিতে গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (বশেমুরবিপ্রবি) মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়েছে। 

মঙ্গলবার (১৪ মে) বেলা বারোটায় বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক ভবনের সামনে বশেমুরবিপ্রবি শিক্ষক সমিতির উদ্যেগে এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়। এর আগে গত ১৩ মার্চ সরকারের অর্থ মন্ত্রণালয়ের অর্থ বিভাগ এক প্রজ্ঞাপন জারি করে। সেখানে বলা হয়েছে, চলতি বছরের ১ জুলাইয়ের পর থেকে স্বশাসিত, স্বায়ত্তশাসিত এবং রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার চাকরিতে যাঁরা নতুন যোগ দেবেন, তাঁরা বিদ্যমান ব্যবস্থার মতো আর অবসরোত্তর পেনশন-সুবিধা পাবেন না। তার পরিবর্তে নতুনদের বাধ্যতামূলক সর্বজনীন পেনশনের আওতাভুক্ত করা হবে।

মানববন্ধনে সরকারের পেনশন সংক্রান্ত এমন বৈষম্যমূলক সিদ্ধান্তের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান আন্দোলনকারীরা।

মানববন্ধনে শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ড. মো. বশির উদ্দিন বলেন, সর্বজনীন পেনশন স্কিম চালু হলে ভবিষ্যতে মেধাবী শিক্ষার্থীরা শিক্ষকতা পেশার প্রতি আগ্রহ হারিয়ে ফেলবে।

শিক্ষক সমিতির সভাপতি মো. ফায়েকুজ্জামান মিয়া তার বক্তব্যে বলেন, সর্বজনীন পেনশন স্কিম চালুর মধ্য দিয়ে নাগরিক, কর্মজীবীদের একটি বৈষম্য সৃষ্টির যে অপচেষ্টা সে অপচেষ্টাকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল শিক্ষক দৃঢ় ভাবে প্রত্যাখান করছে।


মন্তব্য