প্রক্টরের বিচারের দাবিতে এক শিক্ষকের অবস্থান কর্মসূচি 

কুবি
  © টিবিএম

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের (কুবি) বাংলা বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. মো. মোকাদ্দেস-উল-ইসলামের উপর  প্রক্টর কাজী ওমর সিদ্দিকী কর্তৃক 'হামলার' প্রতিবাদে প্রক্টর পদ থেকে অপসারণ ও সুষ্ঠু তদন্তপূর্বক শাস্তির দাবিতে প্রশাসনিক ভবনের সামনে অবস্থান কর্মসূচি পালন করেছেন মোকাদ্দেস-উল-ইসলাম নিজেই।

বুধবার (১৫ মে) দুপুর সাড়ে ১২টায় এই অবস্থান কর্মসূচি পালন করেন। পরবর্তীতে মোকাদ্দেস-উল-ইসলামের সাথে একাত্মতা পোষণ করে শিক্ষক সমিতির নেতৃবৃন্দরাও তার সাথে দাড়িয়েছেন। 

এ সময় বাংলা বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক  ড. মোকাদ্দেস-উল-ইসলাম বলেন, 'উপাচার্য এবং প্রক্টর যাদের কাজ হচ্ছে আমাদের নিরাপত্তা বিধান করা, কিন্তু সেই রক্ষকই এখন ভক্ষক হয়ে উঠেছে। গত ২৮ তারিখ কুবির ইতিহাসে সবচেয়ে ন্যাক্কারজনক ঘটনা ঘটিয়ে তারা শিক্ষকদের উপর আক্রমণ করেছে। ওই আক্রমণের শিকার আমিও হয়েছি। গত দুই সপ্তাহ আগে আমি এর প্রতিকার চেয়ে প্রশাসন বরাবর চিঠি দিয়েছি এবং চিঠিতে স্পষ্ট উল্লেখ করেছি যে এই ধরনের লোক প্রশাসনে থাকা মানে সেটা শিক্ষক, শিক্ষার্থী সকলের জন্য হুমকিস্বরূপ। যেহেতু গত ১৪দিনে কোনো ধরনের ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি তাই আমি প্রক্টরের অপসারণ ও সুষ্ঠু তদন্তের দাবিতে আমি নিজেই দাঁড়িয়েছি।'

এ ব্যাপারে শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. আবু তাহের বলেন, 'বিদ্যুৎ স্যারের (মোকাদ্দেস-উল-ইসলাম) উপর হাত তোলা হয়েছে এর জন্য  ব্যাক্তিগতভাবে উনি আজকে দাঁড়িয়েছেন নায্য বিচারের দাবিতে। আমরা (শিক্ষক সমিতি) উনার সাথে একাত্মতা পোষণ করছি উনার উপর হামলার নায্য বিচারের জন্য।'


মন্তব্য