বাল্যবিবাহ বন্ধ করতে আসায় পালালেন বর-কনে!

চট্টগ্রামে
  © ফাইল ছবি

চট্টগ্রামের আনোয়ারায় এক এসএসসি পরীক্ষার্থীর বাল্যবিবাহ বন্ধ করেছেন উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট হুছাইন মুহাম্মদ। বাল্য বিয়ের ঘটনায় কনের মাকে ৫০ হাজার টাকা অর্থদণ্ড করা হয়েছে।

রোববার (৯ জুন) উপজেলার সদর ইউনিয়নের একটি কমিউনিটি সেন্টারে এ ঘটনা ঘটে।

উপজেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, ১৬ বছর বয়সি এক এসএসসি পরীক্ষার্থীর সঙ্গে একই উপজেলার এক তরুণের বিয়ে ঠিক হয়েছিল। বর-কনের উভয়পক্ষের সম্মতিতে রোববার দুপুরে বিবাহ সম্পন্ন করার দিন ধার্য করা হয়। সে অনুয়ায়ী কনে পক্ষ বিয়ের আয়োজন করেন। খবর পেয়ে বিকেলে উপজেলা প্রশাসন ওই কমিউনিটি সেন্টারে হাজির হয়ে বিয়েটি বন্ধ করে দেন। তবে ম্যাজিস্ট্রেট আসার খবর পেয়ে বর ও কনে পালিয়ে যায়।

এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট হুছাইন মুহাম্মদ বলেন, একটি কমিউনিটি সেন্টারে এসএসসি পরীক্ষার্থীর বাল্যবিবাহের খবর পেয়ে তা বন্ধ করে দেওয়া হয়। প্রশাসনের উপস্থিতির খবর পেয়ে বর-কনে পালিয়ে যায়। এ সময় বাল্যবিবাহ নিরোধ আইন ২০১৭ অনুযায়ী কনের মাকে ৫০ হাজার টাকা অর্থদণ্ড করা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, বাল্যবিবাহ দেশ ও জাতির জন্য অভিশাপ। সুতরাং বাল্যবিবাহ নিরোধকল্পে উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে এ ধরনের অভিযান অব্যাহত থাকবে।


মন্তব্য