রোগীকে যৌন হয়রানি, চিকিৎসক ও ক্লিনিক মালিক আটক

পাবনা
  © সংগৃহীত

পাবনায় এক রোগীকে যৌন হয়রানির অভিযোগে এক চিকিৎসক ও ক্লিনিক মালিককে আটক করেছে পুলিশ। শনিবার (৬ জুলাই) বিকেলে পাবনা সদর থানার পাশে অবস্থিত নিউমেডিপ্যাথ ডায়াগনস্টিক সেন্টার থেকে তাদের আটক করা হয়। আটকরা হলেন– ডায়াগনস্টিক সেন্টারটির মালিক জীবন আলী ও চিকিৎসক শোভন সরকার।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, শনিবার দুপুরে ভুক্তভোগী নারী তার স্বামীর সঙ্গে নিউমেডিপ্যাথ ডায়াগনস্টিক সেন্টারে আল্ট্রাসনোগ্রাম করানোর জন্য যান। ওই নারীকে নির্ধারিত কক্ষে নিয়ে নারী সহকারীকে দিয়ে তলপেটে জেল মাখা হয়। এসময় কৌশলে ওই নারী সহকারীকে বাইরে পাঠিয়ে রোগীর যৌনাঙ্গে হাত দিয়ে যৌন উত্তেজনামূলক কথাবার্তা বলেন ডা. শোভন সরকার। সঙ্গে সঙ্গে রোগী বাইরে এসে বিষয়টি তার স্বামীকে জানালে সেখানে উত্তেজনাকর পরিস্থিতি তৈরি হয়। এসময় রোগী ও তার স্বামীকে বিষয়টি নিয়ে আর বাড়াবাড়ি না করার জন্য হুমকি-ধামকি দেওয়া হয় ক্লিনিক মালিকের পক্ষ থেকে। পরে ভুক্তভোগীরা থানা পুলিশের আশ্রয় নেন।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে পাবনা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রওশন আলী জানান, অভিযোগের ভিত্তিতে ক্লিনিক মালিক ও চিকিৎসককে আটক করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। রোববার তাদের আদালতে সোপর্দ করা হবে।


মন্তব্য