স্ত্রী জানতেন স্বামী বিমানবাহিনীতে চাকরি করেন, অথচ সে একজন পেশাদার জুতা চোর

বিমান
  © টিবিএম ফটো

বছরের পর বছর স্ত্রীর কাছে পেশা লুকিয়ে করতেন চুরি। কিন্তু স্ত্রী জানতেন স্বামী বিমানবাহিনীতে চাকরি করেন। স্ত্রী যেন কোনোভাবেই সন্দেহ না করে এজন্য নকল ইউনিফর্মও বানিয়েছিলেন স্বামী। কিন্তু শেষ পর্যন্ত রক্ষা হলো না। বিমানবাহিনীর দপ্তর থেকে থেকে জুতা চুরির সময় ধরা পড়েন স্বামী। অভিযুক্ত ওই ব্যক্তির নাম ইন্দ্রকুমার মালি।

পুলিশ জানিয়েছে, ৪০ বছর বয়সি ইন্দ্র ভারতের উত্তরপ্রদেশের বালিয়া জেলার বাসিন্দা। গত তিন বছর ধরে তিনি উত্তরাখণ্ডের হালদাওনি এলাকায় বসবাস করেন। নিজের পেশা সম্পর্কে স্ত্রীকে মিথ্যা কথা বলেছেন ইন্দ্র। মিথ্যা পরিচয় নিয়ে বেঁচে থাকার জন্য চুরি করতেও হাত কাঁপেনি তার। 

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, মঙ্গলবার (৬ ফেব্রুয়ারি) বরৌলির বিমানবাহিনীর দপ্তর থেকে জুতা চুরি করতে গিয়ে ধরা পড়েন তিনি।

পুলি‌শ জানায়, বিমানবাহিনীর কর্মকর্তাদের নকল ‘ইউনিফর্ম’ পরে দপ্তরে প্রবেশ করেছিলেন ইন্দ্র। কিন্তু নির্দিষ্ট নিয়ম মেনে ‘ইউনিফর্ম’ না পরার কারণে তা নজরে আসে ওই দপ্তরের এক কর্মকর্তার। ইন্দ্রের পরিচয়পত্র মিলিয়ে দেখার সময় জানা যায় তা নকল। সঙ্গে সঙ্গে পুলিশকে খবর দেন ওই কর্মকর্তা। 

ঘটনাস্থলে পৌঁছে ইন্দ্রের কাছ থেকে ভুয়া পরিচয়পত্র, তিনটি ভুয়া আধার কার্ড, তিনটি এটিএম কার্ড, দু’টি মোবাইল ফোন এবং পাঁচটি সিম কার্ড উদ্ধার করে পুলিশ। বিমান বাহিনীর প্রতীক লাগানো একটি গাড়িও উদ্ধার করা হয় ইন্দ্রের কাছ থেকে।

গ্রেপ্তারের পর জিজ্ঞাসাবাদ করায় ইন্দ্র জানান, স্ত্রীকে মিথ্যা কথা বলেছেন। মিথ্যা পরিচয় দিয়েছেন। 


মন্তব্য