দক্ষিণ কোরিয়ার ভূখণ্ড দখল করতে প্রস্তুত থাকতে হবে: কিম

উত্তর কোরিয়া
  © ফাইল ছবি

উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উন বলেছেন, যেকোনো জরুরি পরিস্থিতিতে দক্ষিণ কোরিয়ার ভূখণ্ড দখল করতে পিয়ংইয়ংকে অবশ্যই প্রস্তুত থাকতে হবে।

গতকাল শুক্রবার (৯ ফেব্রুয়ারি) এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে রাশিয়ার বার্তা সংস্থা তাস। এছাড়া আরটি ইন্টারন্যাশনাল, ফক্স নিউজ, পার্স টুডের প্রতিবেদনেও একই তথ্য জানানো হয়েছে।

উত্তর কোরীয় সামরিক বাহিনীর প্রতিষ্ঠার ৭৬তম বার্ষিকী উপলক্ষে দেওয়া এক ভাষণে কিম জং উন একথা বলেন। 

এ সময় তিনি দেশের সামরিক বাহিনীর প্রশংসা করে বলেন, সেনাবাহিনীকে অবশ্যই দেশের সার্বভৌমত্ব এবং মর্যাদা রক্ষা করতে হবে। সাম্রাজ্যবাদীরা যে প্রতারণা এবং যুদ্ধের ঝুঁকি তৈরি করেছে তার মোকাবেলায় সামরিক বাহিনীকে প্রস্তুত থাকতে হবে।

দক্ষিণ কোরিয়ার পক্ষ থেকে ক্রমবর্ধমান উত্তেজনাপূর্ণ সম্পর্কের বিষয়ে কিম জং উন বলেন, “আমরা আমাদের জনগণের বিভাজন এবং সংঘর্ষের ইতিহাস সংক্ষিপ্ত করেছি এবং দক্ষিণ কোরিয়ার পুতুল সরকারকে পিয়ংইয়ংয়ের সবচেয়ে ক্ষতিকারক এবং অপরিবর্তনীয় শত্রু হিসেবে সংজ্ঞায়িত করেছি। এই অবস্থায় জরুরি পরিস্থিতিতে উত্তর কোরিয়ার সামরিক বাহিনী এবং নীতি নির্ধারকরা সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে, দক্ষিণ কোরিয়ার ভূখণ্ডকে উত্তর কোরিয়া দখল করে নেবে।”

এর কিছুদিন আগে কিম জং উন দক্ষিণ কোরিয়ার সঙ্গে তার দেশের পুনঃ একত্রীকরণের সম্ভাবনাকে বাতিল করে দিয়েছিলেন। সে সময় তিনি বলেছিলেন, বেশিরভাগ ক্ষেত্রে দুই দেশের মধ্যে ব্যাপক মাত্রায় বিরোধিতা রয়েছে। এছাড়া তিনি সম্প্রতি দক্ষিণ কোরিয়াকে দেশের প্রধান শত্রু হিসেবে ঘোষণা করার জন্য উত্তর কোরীয় পার্লামেন্টের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।


মন্তব্য


সর্বশেষ সংবাদ