হামাসের যুদ্ধবিরতির প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান ইসরায়েলের

হামাস
  © ফাইল ছবি

হামাসের দেওয়া শুক্রবারের (১৫ মার্চ) নতুন যুদ্ধবিরতির প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করেছে ইসরায়েলের যুদ্ধকালীন মন্ত্রীসভা। নতুন প্রস্তাবে যুদ্ধবিরতির প্রথম ধাপে অসুস্থ, বৃদ্ধ ও নারী জিম্মিদের মুক্তি দেওয়ার কথা জানিয়েছিল হামাস।

এর বদলে ইসরায়েলকে ৭০০ থেকে এক হাজার ফিলিস্তিনি বন্দিকে মুক্তি দেওয়ার দাবি ছিল তাদের।
বন্দি মুক্তির যে তালিকা হামাস দিয়েছে তার মধ্যে ইসরায়েলি আদালতে যাবজ্জীবন দণ্ডপ্রাপ্ত ১০০ বন্দিও রয়েছেন। নতুন প্রস্তাব অনুযায়ী প্রথম ধাপের পর দ্বিতীয় ধাপে সব জিম্মিকে মুক্তি দেওয়াও ঘোষণা দেয় হামাস। এরপর স্থায়ী যুদ্ধবিরতির তারিখ ঘোষণার দাবি রাখে সংগঠনটি।  

তবে হামাসের এই প্রস্তাবে রাজি হননি ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু। হামাসের যুদ্ধবিরতির প্রস্তাব নিয়ে যুদ্ধকালীন মন্ত্রীসভার সঙ্গে বৈঠক করেন নেতানিয়াহু। এই সময় হামাসের নতুন প্রস্তাবকে ‘উদ্ভট’ সমালোচনা করেন তিনি। খবর আল জাজিরা

এদিকে নেতানিয়াহু দপ্তর জানিয়েছে রাফাহতে হামলা চালানোর পরিকল্পনা অংশ হিসেবে সেখানকার বেসামরিক বাসিন্দাদের সরিয়ে নিতে প্রস্তুত রয়েছে ইসরায়েলি প্রতিরক্ষা বাহিনী।

ইসরায়েলের এই ধরনের অবস্থানের সমালোচনা করে হামাসের সিনিয়র কর্মকর্তা স্বামী আবু জুহরি বলেছেন, নেতানিয়াহু আরও গণহত্যা চালানোর জন্য অজুহাত খুঁজে বেড়াচ্ছেন।


মন্তব্য