মহারাষ্ট্রে সুখোই যুদ্ধবিমান বিধ্বস্ত

বিমান
  © এনডিটিভি

দুর্ঘটনার কবলে পড়েছে ভারতের সেনাবাহিনীর একটি বিমান। আজ বুধবার (০৫ জুন) মহারাষ্ট্রের নাসিকের একটি মাঠে সুখোই-থার্টি-এমকেআই নামের ওই যুদ্ধবিমানটি বিধ্বস্ত হয়েছে। খবর এনডিটিভির।

এতে সামান্য আঘাত পেলেও পাইলট এবং কো-পাইলট নিরাপদে বের হতে সক্ষম হন। শিরসগাঁও গ্রামের কাছে একটি মাঠে বিমানটি বিধ্বস্ত হয় বলে এক সিনিয়র পুলিশ কর্মকর্তা জানিয়েছেন।

ভিজ্যুয়ালগুলিতে বিমানটি মাঠে বিধ্বস্ত হওয়ার পরে ধোঁয়ার ঢেউয়ের আভা দেখা যায়। টুইন-ইঞ্জিন সংবলিত এই বিমানটি আগুনে জ্বলছিল। সেইসঙ্গে দুর্ঘটনাস্থলের কাছে জনতার ভিড় জমতে দেখা যায়।

এনডিটিভিকে সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে, বিমানটি মহারাষ্ট্রের নাসিকের ওজার থেকে উড্ডয়ন করেছিল। এটি হিন্দুস্তান অ্যারোনটিক্স লিমিটেড (এইচএএল) দ্বারা ঠিক করার পরে পরীক্ষামূলক উড্ডয়ন করছিলো।

পাইলটরা বিমানটিতে প্রযুক্তিগত ত্রুটির কথা জানিয়েছেন। এছাড়াও সুখোই-৩০ এমকেআই বর্তমানে ভারতীয় বিমান বাহিনীর তালিকায় ছিল না বলে জানিয়েছে সূত্রটি।

দুর্ঘটনার পর পুলিশ ও জরুরি পরিষেবা ঘটনাস্থলে পৌঁছেছে এবং পাইলটদের চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

উল্লেখ্য, সুখোই ফাইটার জেট একটি টুইন-ইঞ্জিন, টুইন-সিটার, চতুর্থ প্রজন্মের যুদ্ধবিমান। এটি রাশিয়া দ্বারা নির্মিত। উড়োজাহাজটি হিন্দুস্তান অ্যারোনটিক্স লিমিটেডের (এইচএএল) লাইসেন্সের অধীনে তৈরি করা হয়েছে। এটি ২০ বছরেরও বেশি সময় ধরে বিমান বাহিনীতে কাজ করছে এবং এমকেআই সংস্করণ সর্বশেষ হওয়ার সাথে বেশ কিছু আপগ্রেড করেছে।


মন্তব্য