বোয়িংয়ের উড়োজাহাজে তীব্র ঝাঁকুনি; লাগেজ রাখার জায়গা থেকে বের হলেন যাত্রী!

ঝাঁকুনি
  © সংগৃহীত

বেশ কিছুদিন ধরেই উড়োজাহাজে ঝাঁকুনির ঘটনা ঘটছে। এর মধ্যে বেশিরভাগই ঘটছে মার্কিন নির্মাতা প্রতিষ্ঠান বোয়িংয়ের উড়োজাহাজে। এবার বোয়িংয়ের একটি উড়োজাহাজে তীব্র ঝাঁকুনি অনুভূত হয়েছে। 

স্থানীয় সময় সোমবার (০১ জুলাই) এয়ার ইউরোপার এক ফ্লাইটে এ ঘটনা ঘটে। এতে অন্তত ৪০ জন আহত হয়েছে। একজনকে বের করে আনা হয়েছে লাগেজ রাখার জায়গা থেকে। 

বার্তা সংস্থা এএফপি বলছে, স্পেনের মাদ্রিদ থেকে উরুগুয়ের মন্টিভিডিওতে যাচ্ছিল এয়ার ইউরোপার ফ্লাইটটি। পথিমধ্যে তীব্র ঝাঁকুনি অনুভূত হলে জরুরী ভিত্তিতে ব্রাজিলের নাতাল বিমানবন্দরে অবতরণ করে এটি। সেখানে নামার পর আহতদের নিয়ে দ্রুত হাসপাতালে যায় বেশ কয়েকটি অ্যাম্বুলেন্স।  

উড়োজাহাজটি ছিল বোয়িংয়ের ৭৮৭-৯ ড্রিমলাইনার। তাতে ক্রুসহ ৩২৫ জন ছিলেন। আহতের অবস্থা তেমন গুরুতর নয় বলে জানা যায়। তারা স্পেন, আর্জেন্টিনা, উরুগুয়ে, ইসরায়েল, বলিভিয়া ও জার্মানির নাগরিক। 

বোয়িংয়ের ৭৮৭-৯ ড্রিমলাইনারের বাকি যাত্রীদের আনতে এরই মধ্যে মাদ্রিদ থেকে পাঠানো হয়েছে উড়োজাহাজ। ব্রাজিলে থাকা উড়োজাহাজ পরীক্ষা করা হচ্ছে।  

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া ভিডিওতে দেখা যায়, এক লোক ঝাঁকুনির পর লাগেজ রাখার জায়গা থেকে বেরিয়ে আসেন। তবে, ঠিক কী কারণে তিনি সেখানে যান, তা জানা যায়নি।


মন্তব্য