আগামী ৫ মাসের মধ্যে ইন্টারনেটের দাম কমানো হবে : পলক

পলক
  © ফাইল ছবি

ইন্টারনেটের গতি ও দাম নিয়ে ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেছেন, আগামী পাঁচ মাসের মধ্যে ইন্টারনেটের দাম কমানো হবে এবং ইন্টারনেটের গতি আরও বৃদ্ধি করা হবে। 

আজ বুধবার (৩১ জানুয়ারি) দুপুরে ফেনীতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে নারী প্রশিক্ষনার্থীদের স্মার্ট উপহার ল্যাপটপ বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

ফেনী শহরের পিটিআই মাঠে জেলা প্রশাসন ও তথ্য প্রযুক্তি অধিদপ্তর এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের আওতায় ফেনী ছাড়াও চাঁদপুর ও লক্ষীপুর জেলার মোট ৭৪৫ জন নারী প্রশিক্ষণার্থীর মাঝে ল্যাপটপ বিতরণ করা হয়।

অনুষ্ঠানে প্রতিমন্ত্রী বলেন, শেখ রাসেল ডিজিটাল ল্যাব কার্যকর করতে শিক্ষকদেরকে প্রশিক্ষণ দেয়া হবে। বেকার যুবকরা যেন ওই ল্যাবগুলো ব্যবহার করতে পারেন সেজন্য উদ্যোগ গ্রহন করছি। প্রত্যেক জায়গায় যেন ইন্টারনেটের গতি বৃদ্ধি পায়, ইন্টারনেটের দাম যেন কমানো যায়, সরকারি কোম্পানি সাবমেরিন ক্যাবেল কোম্পানিকে দাম কমানোর জন্য নির্দেশ দিয়েছি। ফোর-জি যাতে প্রতিশ্রুত ইস্প্রিড যেন প্রত্যেকটি মোবাইল নেটওয়ার্ক কোম্পানি দেয় এবং বিটিসিএলের যে ব্রডব্যান্ড নেটওয়ার্ক কানিক্টিভিটি রয়েছে জিফোন রয়েছে যেন ফেনীসহ দেশের প্রত্যকেটি জেলায় সুলভ মূল্যে প্রত্যেকটি বাড়িতে যেন ব্রডব্যান্ড কানিক্টিভিটি দিতে পারি তার জন্য উদ্যোগ গ্রহণ করছি।

পলক আরো বলেন, "দেশে যৌতুকপ্রথা ব্যাধী হয়ে উঠছিল। ৯৬ সালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার যুগান্তকারী সিদ্ধান্তে নারী শিক্ষার প্রসার, যৌতুক প্রথার বিরুদ্ধে সোচ্ছার ভূমিকা রাখে। একসময় প্রাইমারী স্কুলে পুরুষ শিক্ষক ছিলেন। এখন ৬০শতাংশ নারী। প্রধানমন্ত্রীর অসংখ্য সিদ্ধান্তে নারীর ক্ষমতায়ন ও কর্মক্ষেত্র তৈরি হয়েছে। ২০০৮ সালে ঘরে ঘরে বিদ্যুত ছিল না। এখন শতভাগ বিদ্যুতের আলোয় আলোকিত। ১৩ কোটি মানুষ ইন্টারনেটে যুক্ত। ১৫ বছর আগের চেয়ে বৈপ্লবিক পরিবর্তন হয়েছে। আইটি সক্টরে ২০ লাখ তরুণ-তরুণীর কর্মসংস্থান হয়েছে। এ খাত থেকে ১.৯ মিলিয়ন ডলার আয় করেছি। উপহারপ্রাপ্ত তরুণীরা দেশের কল্যাণে আরো ১০ জন উদ্যোক্তা তৈরি করতে হবে।" 

এ সময় ফেনী জেলায় ১১৪টি শেখ রাসেল ডিজিটাল ল্যাব আছে। আরো ১শটি ল্যাব তৈরির ঘোষণা দেন প্রতিমন্ত্রী পলক।

ফেনী জেলা প্রশাসক শাহীনা আক্তারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন ফেনী-১ আসনের সংসদ সদস্য আলা উদ্দিন আহমেদ চৌধুরী নাসিম, ফেনী-২ আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নিজাম উদ্দিন হাজারী, পুলিশ সুপার জাকির হাসান, ই-ক্যাব প্রেসিডেন্ট শমী কায়সার।

এ সময় আরও বক্তব্য রাখেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (অতিরিক্ত সচিব) মো. মোস্তফা কামাল। কাজী তারানার উপস্থাপনায় প্রশিক্ষণার্থীদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ফেনীর চৈতী সাহা, লক্ষীপুরের ইশরাত জাহান তানজীনা ও চাঁদপুরের সাবিহা জামান।


মন্তব্য