এবারও পার পেয়ে যাচ্ছেন হাথুরুসিংহে?

বিশ্বকাপ
  © ফাইল ছবি

বিশ্বকাপ ব্যর্থতায় ক্রিকেটারদের শূলে চড়ানো হলেও পার পেয়ে যাচ্ছেন হেড কোচ চান্ডিকা হাথুরুসিংহে। এই লঙ্কান কোচ দ্বিতীয় দফায় টাইগারদের দায়িত্ব নেয়ার পর একের পর এক ব্যর্থতার মাইলফলক স্পর্শ করে যাচ্ছে টিম বাংলাদেশ। গেল দেড় বছরে তার অধীনে খেলা একটি এশিয়া কাপ আর দুটো বিশ্বকাপের সবগুলোতেই ব্যর্থ লাল-সবুজ দল। তবুও কোনো ধরনের জবাবদিহিতার মুখে পড়তে হচ্ছে না এই লঙ্কান কোচকে।

রাসেল ডমিঙ্গোকে সরিয়ে গত বছরের জানুয়ারিতে দ্বিতীয় দফায় টাইগারদের দায়িত্ব তুলে দেয়া হয় হাথুরুসিংহের কাছে। তবে প্রত্যাবর্তনটা ঠিক উপভোগ করতে পারছেন না হাথুরু। শেষ দেড় বছরে তার অধীনে খেলা ৩ টুর্নামেন্টেই ভরাডুবি হয়েছে বাংলাদেশের। সর্বশেষ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ তো আছেই, ভারতের ওয়ানডে বিশ্বকাপে তার রণকৌশল বড় প্রশ্নের জন্ম দিয়েছিল দেশের ক্রিকেটে।      

দ্বিতীয় দফায় দায়িত্বে এসে কোচিং স্টাফ নিজের মতো ঢেলে সাজিয়েছেন হাথুরুসিংহে। ২০২৩ বিশ্বকাপ ব্যর্থতার দায় চাপিয়ে তাড়িয়ে দেয়া হয় অ্যালান ডোনাল্ড-জেমি সিডন্সদের। গুঞ্জন আছে, দলে নিজের একচেটিয়া প্রভাব বিস্তারে পছন্দের ব্যক্তিদের নিয়ে কোচিং স্টাফ সাজিয়েছেন এই লঙ্কান কোচ।    
 
হাথুরুর প্রথম দফায় সাফল্য ছিল। সেই দফায় ২০১৫ বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনাল আর ২০১৭ চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির সেমিফাইনাল খেলেছিল টাইগাররা। ওয়ানডে র‌্যাঙ্কিংয়ের সেরা অবস্থান কিংবা র‌্যাঙ্ক টার্নার উইকেটে ইংল্যান্ড-অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রথম টেস্ট জয়, এমন অনেক সাফল্যই এসেছিল সে দফায়।
 
তবে সিনিয়র ক্রিকেটার কিংবা দল গোছানোর কাজে সংশ্লিষ্ট সাবেক ক্রিকেটারদের সঙ্গে হাথুরুর শীতল সম্পর্ক ছিল ওপেন সিক্রেট। ২০১৭ সালে অদ্ভুতভাবে চাকরি ছাড়ার সময় হাথুরুর বেতন ছিল তৎকালীন ক্রিকেট বিশ্বের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ। তবুও দেশে ফিরে ইস্তফাপত্র পর্যন্ত দেননি এই লঙ্কান।    
 
সেসময় হাথুরুর এই অপেশাদার আচরণের ব্যাখ্যায় বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন বলেছিলেন, 'তার একটা সময় মনে হয়েছে এখন আর এই দলকে আমার দেয়ার কিছু নেই। তাই এখন আমার এখান থেকে চলে যাওয়াই ভালো।'  
 
হাথুরুর অপেশাদারিত্ব শুধু বিসিবির বেলায় নয়, ভুক্তভোগী তার দেশ শ্রীলঙ্কাও। ২০১৯ বিশ্বকাপে ভরাডুবির পর তাকে বরখাস্ত করে লঙ্কান ক্রিকেট বোর্ড। এরপর ইমেইজ ক্ষুণ্ণ করার অভিযোগ তুলে বোর্ডের কাছে ৫ মিলিয়ন ডলার ক্ষতিপূরণ দাবি করেন চান্ডিকা।
 
টাইগারদের হয়ে প্রথম দফায় বিতর্ক থাকলেও পারফরম্যান্স বাঁচিয়ে দেয় হাথুরুসিংহেকে। এবার বিতর্ক আছে, পারফরম্যান্সও যাচ্ছেতাই। ২০২৩ এর জানুয়ারিতে তিনি দায়িত্ব গ্রহণের পর পছন্দের ওয়ানডে ফরম্যাটেও রঙ হারিয়েছে টাইগাররা।  
 
জিম্বাবুয়ে আর শ্রীলঙ্কা বাদে শেষ দেড় বছরে ওয়ানডে সিরিজ জেতেনি হাথুরুর দল। আগামী বছরের শুরুতেই চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি। এর আগে এই লঙ্কান কোচের চাকরি থাকবে কিনা নিশ্চিত নয়। তবে দর্শকদের প্রত্যাশা পূরণে টাইগারদের যে অনেক কাজ বাকি, সে কথা বলাই বাহুল্য। 


মন্তব্য